পর্ণ আসক্তদের ভয়াবহ পরিণতি


বর্তমানে বিশ্বের তরুন প্রজন্ম পর্ণের প্রতি দিন দিন আসক্ত হয়ে পড়ছে। আপনিও কি এই আসক্তদের মধ্যে একজন? তাহলে আপনার জন্য অপেক্ষা করছে ভয়াবহ ভবিষ্যৎ।

সম্প্রতি এক গবেষণায় দেখা যায়, যারা পর্ণের প্রতি বেশি আসক্ত এবং সারাক্ষণ পর্ণ নিয়ে চিন্তা করেন তারা বিয়ের পর স্বাভাবিক যৌন জীবনে কোন উৎসাহ পায় না। প্রতিনিয়ত পর্ণ দেখার ফলে নিউট্রো ট্রান্সমিটার যা ব্রেনের মাঝে উত্তেজনার সৃষ্টি করে তা নষ্ট হয়ে যায়। এটা পর্ণ দেখার সময় অতি উত্তেজনার ফলেও হয়ে থাকে। স্বাভাবিক যৌন জীবনে ডোপামিন নামক উত্তেজনা তারা হারিয়ে ফেলে।

৩১ বছর বয়সী অভিনব শর্মা( ছদ্ম নাম) পেশায় একজন প্রযুক্তিবিদ যিনি ইন্টারনেটে পর্ণ দেখায় আসক্ত ছিলেন। তিনি বিয়ে করেছেন চার বছর হল। তিনি বলেন, সমাজের আট দশ জন মানুষের মত কিশোর বয়সে আমিও পর্ণ দেখতাম। ইন্টারনেটে সব ধরনের মানুষের পছন্দ অনুযায়ী নানা রকম পর্ণ থাকে যা খুব সহজেই দেখা যায়। আমি বিয়ের পরেও আমার স্ত্রীর সাথে সম্পর্ক করার চেয়ে পর্ণের প্রতিই বেশি আকৃষ্ট ছিলাম যা আমার স্বাভাবিক যৌন কার্যক্রম মারাত্মক ভাবে ক্ষতি গ্রস্থ করেছে। তাই তারা এখন একজন যৌন বিশেষজ্ঞের শরণাপন্ন হয়েছেন।

বিশিষ্ট যৌন বিশেষজ্ঞ ড: দীপক জুমানি এই গবেষণার ফলাফলের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, পর্ণ আসক্ত রোগীর হার দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে এবং আমরা এই ধরনের রোগী প্রতিদিনই পাচ্ছি। এর প্রধান কারন এইসব পর্ণের সহজলভ্যতা।

তিনি বলেন আমরা বর্তমানে একটি পর্ণ আসক্ত সমাজে বসবাস করছি যেখানে এটি সংক্রামক ব্যাধির মত বিস্তার লাভ করছে। পর্ণগ্রাফিতে আসক্তির ফলে মানুষের নারীর প্রতি স্বাভাবিক আকর্ষণ কমে যায় ও যৌন ক্ষমতা নষ্ট হয়ে যায়। আরেকজন যৌন বিশেষজ্ঞ ড: ধনঞ্জয় গম্ভীর বলেন, পর্ণ কোন স্বাভাবিক যৌন কার্যক্রম না, এটা একটা বিকৃত যৌন প্রক্রিয়া।

0 comments:

Post a Comment

" কিছু স্বপ্ন আকাশের দূর নীলিমাক ছুয়ে যায়, কিছু স্বপ্ন অজানা দূরদিগন্তে হারায়, কিছু স্বপ্ন সাগরের উত্তাল ঢেউ-এ ভেসে যায়, আর কিছু স্বপ্ন বুকের ঘহিনে কেদে বেড়ায়, তবুও কি স্বপ্ন দেখা থেমে যায় ? " সবার স্বপ্নগুলো সত্যি হোক এই শুভো প্রার্থনা!

Follow me