ছুটির শেষ দিনগুলোতে সময় কাটান প্রিয় মানুষের সঙ্গে

ঈদে তো এমনিতেই বেশ কটা দিন ছুটি পাওয়া যায়। আর এবার তো ঈদের ছুটির সঙ্গে যোগ হয়েছে পূজার ছুটি আর সাপ্তাহিক ছুটি। সব মিলিয়ে প্রায় টানা পাঁচ ছয় দিনের একটি ছুটি পেয়েছে কম বেশি সবাই। পুরো বছর যেহেতু প্রচন্ড ব্যস্ততায় দিন কাটে এবং প্রিয় মানুষটিকে দেয়ার মত তেমন সময় পাওয়া যায় না, তাই এইবারের লম্বা ছুটিটাকে কাজে লাগিয়ে ফেলুন। ঈদের এই ছুটিতে পর্যাপ্ত সময় দিন আপনার স্বামী কিংবা স্ত্রীকে। ঈদ ঈদ করে প্রচণ্ড ব্যস্ত সময় পার করেছেন নিশ্চয়ই সবাই? এখন সময় একটুখানি আরাম করার। অনেকেরই রবিবারের আগে অফিস নেই, অনেকে ছুটি নিয়েছেন কয়েকটা দিন বেশি। সব মিলিয়ে ঈদের ব্যস্ততা শেষে এখনই কিন্তু সময় প্রিয়জনের সাথে সুন্দর কিছু মুহূর্ত কাটাবার।
আসুন দেখে নেয়া যাক কিভাবে এই ছুটিটাকে প্রিয়জনকে সময় দিয়ে কাজে লাগানো যায়।

ঘুরে আসুন দূরে কোথাও

অন্য সময় যেহেতু এতো লম্বা ছুটি পাওয়া যায়না তাই নিজের শহরের বাইরে কোথাও বেড়াতেও যাওয়া হয় না। এবারের ছুটিটা যেহেতু বেশ লম্বা তাই এসময়ে ঘুরে আসতে পারেন নিজের শহরের বাইরে কোনো যায়গা থেকে। প্রিয় মানুষটিকে নিয়ে দেখে আসুন সমুদ্র অথবা পাহাড়। সামর্থ্য থাকলে দেশের বাইরে থেকেই বেড়িয়ে আসতে পারেন। তাহলে ঈদের আনন্দে ভিন্ন আমেজ পাওয়া যাবে। আর যদি দূরে কোথাও বেড়াতে যাওয়ার সময় কিংবা সামর্থ্য না হয় তাহলে নিজ শহরের সুন্দর যায়গা গুলোতে ঘুরে আসুন সঙ্গীকে নিয়ে।

ঘর গুছিয়ে ফেলুন

অন্য সময় যেহেতু কাজের ব্যস্ততায় ফুসরত মেলে না তাই এই ছুটিতে প্রিয় মানুষটিকে নিয়ে ঘর সাজিয়ে ফেলুন। মার্কেটে গিয়ে পছন্দসই ঘর সাজানোর জিনিসপাতি কিনে আনুন। এরপর দুজনে মিলে ঘরটাকে সাজিয়ে ফেলুন সুন্দর করে। কিংবা পুরো সজ্জা গুলোকেই নতুন করে সাজান। এক সঙ্গে ঘর সাজানোর আনন্দ উপভোগ করুন দুজনের পছন্দ অপছন্দকে গুরুত্ব দিয়ে। তাহলে ছুটিদিন গুলো কাজেও লাগবে আবার দুজনে দুজনার সঙ্গ উপভোগও করতে পারবেন।

প্রিয় খাবার রাঁধুন

ঈদে তো সবার বাসাতেই বিশেষ খাবার রান্না করা হয়। পোলাউও, কোরমা, সেমাই, ফিরনী এগুলো তো প্রায় সবাই রাঁধেন এসময়ে। এবার রান্নাটা কেবল স্ত্রীর হাতে ছেড়ে না দিয়ে নিজেও সাহায্য করুন তাঁকে। বিশেষ দিনের বিশেষ খাবারগুলো এক সাথে রান্না করার মজাই আলাদা। যদি সম্ভব হয় তাহলে আপনি আপনার সঙ্গীর পছন্দের খাবার গুলো রান্না করার দ্বায়িত্ব নিন। আর যদি রাঁধতে না পারেন তাহলে অন্তত রান্না ঘরে গিয়ে সঙ্গীকে সময় দিন এবং সঙ্গীকে সাহায্য করুন। দেখবেন সময়টা কেমন রোমান্টিক হয়ে উঠছে! 

রোমান্টিক হোন

বছরের অন্য দিন গুলোর যান্ত্রিকতায় আপনিও যন্ত্রে পরিণত হয়েছেন? এবার ছুটিতে তাহলে হয়ে উঠুন একজন রোমান্টিক মানুষ। আপনার পুরোনো দাম্পত্য সম্পর্কটাকে রাঙিয়ে নিন নতুন করে। আপনার সঙ্গীর সাথে রোমান্টিক আলাপ করুন, তার সৌন্দর্যের প্রশংসা করুন। এই ছুটিতে যা কিছুই করবেন এক সঙ্গে করুন। এক সঙ্গে সিনেমা দেখে আসুন কিংবা কম্পিউটারে গেম খেলতে পারেন দুজনে মিলে। দিনের বেশির ভাগ সময়টাতেই চেষ্টা করুন একে অপরের প্রতি মনো্যোগ দিতে। তাহলে দুজনের সম্পর্কটা হয়ে উঠবে আরো সুন্দর ও ভালোবাসাপূর্ণ।

0 comments:

Post a Comment

" কিছু স্বপ্ন আকাশের দূর নীলিমাক ছুয়ে যায়, কিছু স্বপ্ন অজানা দূরদিগন্তে হারায়, কিছু স্বপ্ন সাগরের উত্তাল ঢেউ-এ ভেসে যায়, আর কিছু স্বপ্ন বুকের ঘহিনে কেদে বেড়ায়, তবুও কি স্বপ্ন দেখা থেমে যায় ? " সবার স্বপ্নগুলো সত্যি হোক এই শুভো প্রার্থনা!

Follow me