জনপ্রিয় হয়ে ওঠার ১০টি যাদুমন্ত্র!

 

লাইফস্টাইল ডেস্ক : আপনি কি জনপ্রিয় হতে চান? ক্যাম্পাসে সবার আকর্ষণের কেন্দ্র বিন্দুতে থাকতে অথবা সামাজিক কোনো অনুষ্ঠান মাতিয়ে রাখতে চান? জনপ্রিয় হওয়ার স্বপ্নতো সবাই দেখে। কিন্তু জনপ্রিয় হতে হলে যেই ধাপ গুলো পার হতে হয় তা হয়তো অনেকেরই জানা নেই। সবার আকর্ষণের কেন্দ্রে থাকার স্বপ্ন পূরণ হতে পারে খুব সহজেই। এবার তাহলে এক নজরে দেখে নিন সহজেই কিভাবে জনপ্রিয় হয়ে ওঠা যায়।পরিচিতি বাড়ানো
 
জনপ্রিয় হতে হলে সবচেয়ে জরুরী হলো মানুষের সাথে পরিচিত হওয়া। মানুষের সাথে নিজে থেকেই পরিচিত হতে চেষ্টা করুন। আপনার সাথে সব সময়েই যে অন্যরা এসে পরিচিত হবে এই আশায় না থাকাই ভালো। নিজে থেকে গিয়ে পরিচিত হয়ে আপনার পরিচয় বলুন এবং অন্যের পরিচয় জেনে নিন। যাদের সাথে একবার পরিচিত হয়েছেন তাদের নাম মনে রাখার চেষ্টা করুন। তাহলে পরবর্তিতে দেখা হলে কথা এগিয়ে নিতে সুবিধা হবে।

হাসিমুখ

সব সময় হাসিমুখে থাকবেন। যে কোনো পরিস্থিতিতে হাসি মুখে থাকতে পারে এমন ব্যক্তিকে সবাই ভালোবাসে। কারো ওপর প্রচন্ড রাগ হলেও সেটা হাসি মুখেই জবাব দিন। সবার সাথে হাসি মুখে ভাব বিনিময় করুন। তাহলে মানুষের মুখে মুখে আপনার নামে প্রশংসা ছড়াবে।

ভালো ব্যবহার

ভালো ব্যবহার ছাড়া জনপ্রিয় হওয়ার আশা করা ঠিক না। কারণ মানুষকে সবচেয়ে বেশি আকর্ষণ করে মিষ্টি ব্যবহার। মিষ্টি ব্যবহার করলে আপনি যে কারো মনে জায়গা করে নিতে পারবেন সহজেই।

ভালো পোশাক

আপনি দেখতে যতই আকর্ষনীয় হন না কেনো আপনার পোশাক-পরিচ্ছদ যদি ভালো না হয় তাহলে মানুষ প্রথমেই আপনার সম্পর্কে খারাপ ধারণা করে বসবে। যখন যেখানে যাবেন পরিস্থিতি ও উপলক্ষ্য বুঝে পোশাক পরিধান করবেন। তাহলে মানুষ আপনার রুচিবোধের প্রতি আকর্ষণ বোধ করবে এবং আপনার সুনাম করবে।

পরিচ্ছন্নতা

আপনি কারো সাথে কথা বলতে গেলে আপনার মুখ থেকে বা শরীর থেকে যদি গন্ধ আসে তাহলে স্বাভাবিক ভাবেই সেই ব্যক্তি আপনাকে এড়িয়ে চলবে। পরিচ্ছন্ন শরীর, দাঁত এবং পোষাক মানুষের মনোযোগ আকর্ষণের মূল মন্ত্র।

সামাজিক সাইট

সামাজিক সাইটগুলোতে মানুষের সাথে যোগাযোগ করা খুব সহজ। তাই সামাজিক সাইট যেমন ফেসবুক, গুগল প্লাস ও টুইটারে নিজের একাউন্ট খুলুন। কাছের মানুষজনকে বন্ধু বানিয়ে নিন। ফলোয়ার অপসনটি অ্যাকটিভ রাখুন এবং গঠনমূলক স্ট্যাটাস দিন। এভাবে খুব অল্পসময়েই জনপ্রিয়তা লাভ করতে পারবেন।

খোঁজ খবর নেয়া

যত বেশি সম্পর্ক তত বেশি দ্বায়িত্ব। তাই আপনার বন্ধু-বান্ধব,আত্মীয়, প্রতিবেশী সকলেরই খোঁজ খবর রাখুন। ফোনে, সামাজিক সাইটে অথবা দেখা হলে কুশলাদি জিজ্ঞাসা করুন। পরিবার-পরিজনের কথা জিজ্ঞাসা করুন। তাহলে মানুষের মনে যায়গা করে নিতে পারবেন সহজেই।

বিপদে সাহায্য করা

জনপ্রিয় হতে চাইলে প্রশংসা পাওয়ার মত কিছু করতে হবে। আপনার পরিচিত কিংবা স্বল্প পরিচিত সবার বিপদে আপদে যতটা সম্ভব সাহায্য করুন। তাহলে মানুষের মুখে মুখে ছড়িয়ে পড়বে আপনার প্রশংসা।

বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনে যোগ দেয়া

পাড়া-মহল্লায় কিংবা স্কুল, কলেজ, ইউনিভার্সিটিতে বিভিন্ন সমাজ সেবামূলক প্রতিষ্ঠান থাকে। এসব প্রতিষ্ঠানে যোগ দিন। এতে এক দিকে যেমন সমাজের উপকার হবে অন্যদিকে বিভিন্ন শ্রেনী ও পেশার মানুষের সাথে পরিচিত হতে সুবিধা হবে। প্রচুর মানুষ আপনাকে চিনবে এবং আপনার সামাজিক অবদান সম্পর্কে জানবে। ফলে আপনি সকলের আকর্ষণের কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হবেন।

আত্মবিশ্বাস

যা কিছুই করবেন আত্মবিশ্বাসের সাথে করবেন। যেই ব্যক্তির আত্মবিশ্বাসের অভাব আছে সে কখনো জনপ্রিয় হতে পারে না। নিজের মধ্যে আত্মবিশ্বাস নিয়ে মানুষের সাথে কথা বলুন, মেলামেশা করুন। তাহলে জনপ্রিয় হতে খুব বেশি সময় লাগবে না।

সামাজিক জীবনে সকলের মনোযোগের কেন্দ্রবিন্দু হতে হলে দরকার ধৈর্য, নিষ্ঠা, সততা ও ভালো ব্যবহার। জনপ্রিয়তা পাওয়া খুব কঠিন না হলেও তা ধরে রাখা বেশ কষ্টসাধ্য। তাই একবার জনপ্রিয় হতে পারলে তা ধরে রাখার চেষ্টা করুন। কারণ সিড়ি বেয়ে উপরে ওঠা কঠিন কিন্তু নেমে যাওয়া খুব স্বল্প সময়ের ব্যাপার।

0 comments:

Post a Comment

" কিছু স্বপ্ন আকাশের দূর নীলিমাক ছুয়ে যায়, কিছু স্বপ্ন অজানা দূরদিগন্তে হারায়, কিছু স্বপ্ন সাগরের উত্তাল ঢেউ-এ ভেসে যায়, আর কিছু স্বপ্ন বুকের ঘহিনে কেদে বেড়ায়, তবুও কি স্বপ্ন দেখা থেমে যায় ? " সবার স্বপ্নগুলো সত্যি হোক এই শুভো প্রার্থনা!

Follow me